• বৃহস্পতিবার   ০৭ জুলাই ২০২২ ||

  • আষাঢ় ২২ ১৪২৯

  • || ০৬ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৩

Find us in facebook
সর্বশেষ:
বায়তুল মোকাররমে ঈদের প্রথম জামাত ৭টায় হিলি স্থলবন্দর দিয়ে পেঁয়াজ আমদানি শুরু ঈদের ছুটিতে বাড়ি ফেরার পথে প্রাণ গেল মা-মেয়ের মানুষের কষ্ট লাঘবে লোডশেডিংয়ের রুটিন করার পরামর্শ প্রধানমন্ত্রীর ডিজিটাল ডিভাইস আমরা রপ্তানি করব: প্রধানমন্ত্রী

দুধের সঙ্গে চেতনানাশক খাইয়ে যুবকের গোপনাঙ্গ কর্তন, মালামাল লুট

– দৈনিক রংপুর নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ৬ মার্চ ২০২২  

Find us in facebook

Find us in facebook

রংপুরে দুধের সঙ্গে চেতনানাশক মিশিয়ে খাওয়ানোর পর অচেতন করে এক যুবকের গোপনাঙ্গ কেটে মালামাল লুট করেছেন অজ্ঞানপার্টির সদস্যরা।

শনিবার (৫ মার্চ) সকালে ওই যুবককে কাউনিয়া রেলওয়ে স্টেশন এলাকা থেকে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে রেলওয়ে পুলিশ।

আহত যুবক রংপুরের কাউনিয়া উপজেলার হারাগাছ পৌরসভার দক্ষিণ বানুপাড়া এলাকার বাসিন্দা। তিনি একটি বেসরকারি কোম্পানিতে চাকরি করেন।

রোববার (৬ মার্চ) দুপুরে হাসপাতালে গিয়ে দেখা যায়, পুরুষ ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন ওই যুবক পরিবারের লোকজনকে কাছে পেয়ে কান্নাকাটি করছেন।

সাংবাদিক পরিচয় পেয়ে তিনি বলেন, প্রায় দুই সপ্তাহ আগে রংপুর মহানগরীর বেতপট্টি বাজারে ঠাকুরগাঁও জেলার অজ্ঞাতপরিচয় এক ব্যক্তির সঙ্গে তার পরিচয় হয়। ওই ব্যক্তি তাকে জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে চাকরি দেওয়ার প্রলোভন দেখান।

শুক্রবার (৪ মার্চ) রাতে মহানগরীর জাহাজ কোম্পানির মোড় এলাকায় ওই ব্যক্তি তাকে দেখা করতে বলেন। সেখানে রাত ৯টার দিকে তার সঙ্গে দেখা হয়। এসময় ওই ব্যক্তি তাকে বোতলে ভরা দুধ পান করতে দেন। এরপর তাকে অটোরিকশায় করে মহানগরীর সাতমাথা এলাকায় নিয়ে যান। সাতমাথায় পৌঁছার পর তিনি জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন।

শনিবার তাকে কে হাসপাতালে নিয়ে এসেছেন তা বলতে পারেননি ওই যুবক। জ্ঞান ফেরার পর আজ সকালে তিনি বুঝতে পারেন যে, তার গোপনাঙ্গের নিচে চারদিক কাটা। তিনি বিষয়টি হাসপাতালের চিকিৎসককে জানান। পরে চিকিৎসকরা তার গোপনাঙ্গের গোড়ায় ১৬টি সেলাই দেন।

অজ্ঞানপার্টির সদস্যরা তার কাছ থেকে মোবাইল ফোন, টাকা ও জ্যাকেট নিয়ে গেছেন।

কাউনিয়া রেলওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ আব্দুল মতিন বলেন, ‘শনিবার সকাল ৭টার দিকে স্টেশনের ওভারব্রিজের নিচে ওই যুবককে অচেতন অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখা যায়। পরে সেখান থেকে তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। উদ্ধারের সময় ছেলেটির জ্ঞান ছিল না, শুধু থরথর করে কাঁপছিল।’

তিনি আরও বলেন, ‘ধারণা করা হচ্ছে ওই যুবকের কাছ থেকে কোনো কিছু ছিনতাইয়ের উদ্দেশ্যে কেউ চেতনানাশক খাইয়ে অচেতন করে স্টেশন এলাকায় ফেলে যান।’

Place your advertisement here
Place your advertisement here