• শুক্রবার ২১ জুন ২০২৪ ||

  • আষাঢ় ৭ ১৪৩১

  • || ১৩ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৫

Find us in facebook

দেনমোহর দেওয়ার আগে স্ত্রী মারা গেলে করণীয়

– দৈনিক রংপুর নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ১৭ মে ২০২৩  

Find us in facebook

Find us in facebook

দেনমোহর একজন বিবাহিত নারীর অধিকার। স্ত্রী যেন ন্যায্য অধিকার সঠিকভাবে পান এবং নারীর যেন অবমূল্যায়ন না হয়- তার প্রতি সজাগ দৃষ্টি রাখতে হবে। পবিত্র কোরআনুল কারিমে ইরশাদ হয়েছে- وَآتُوا النِّسَاءَ صَدُقَاتِهِنَّ نِحْلَةً ۚ فَإِن طِبْنَ لَكُمْ عَن شَيْءٍ مِّنْهُ نَفْسًا فَكُلُوهُ هَنِيئًا مَّرِيئًا 
অর্থ: ‘আর তোমরা স্ত্রীদেরকে তাদের মোহর দিয়ে দাও খুশিমনে। তারা যদি খুশি হয়ে তা থেকে অংশ ছেড়ে দেয়, তবে তা তোমরা স্বাচ্ছন্দ্যে ভোগ করো।’। (সূরা: নিসা, আয়াত: ৪)

বিয়ের পর দেনমোহর দেওয়ার আগে স্ত্রী মারা গেলে করণীয় বিষয়ে অনেকে জানতে চান। যেমন একজন প্রশ্ন করেছেন- এক ব্যক্তি তার স্ত্রীকে তালাক দেওয়ার পরই সেই নারী মারা গেছেন। ঘটনাক্রমে সেই নারীর স্বামী তার মোহরানা আদায় করেননি। সেই নারীর কোনো সন্তান এবং উত্তরাধীকারীও নেই যে স্বামী তাদের কাছে সেই নারীর পাওনা মোহরানা দিয়ে দেবেন।

এমন পরিস্থিতিতে তালাকদাতা স্বামী যদি নিজের কোনো ধরনের সওয়াবের আশা না করেন ওই মৃত নারীর পক্ষ থেকে মোহরানার টাকা কোনো মসজিদ নির্মাণ বা ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানে দান করে দেন তাহলে কি তার ওপর থেকে স্ত্রীর মোহরানা আদায় হয়ে যাবে? আর যদি না হয় তাহলে কোন পদ্ধতি অবলম্বন করা যেতে পারে?

এই প্রশ্নের উত্তরে আলেমরা বলেন, মোহরানার টাকা আদায় করার আগেই কোনো নারী মারা গেলে তার উত্তরাধিকার কেউ থাকলে তারা মোহরানার টাকা পাবে। তবে কোনো নারীর উত্তরাধিকার কেউ না থাকলে এবং স্বামীর কাছে তার স্ত্রীর মোহরানার টাকা পাওনা থাকলে সেই নারীর রুহে সওয়াব পৌঁছানোর নিয়তে স্বামী এই টাকা মসজিদ বা মাদরাসায় দান করে দিতে পারবেন। এতে কোনো সমস্যা নেই। (ফতোয়ায়ে হিন্দিয়া, ১/৩০২, ফতোয়ায়ে রাহমানিয়া, ২/৯৫)।

Place your advertisement here
Place your advertisement here