• বুধবার ২৪ জুলাই ২০২৪ ||

  • শ্রাবণ ৯ ১৪৩১

  • || ১৬ মুহররম ১৪৪৬

Find us in facebook
সর্বশেষ:
সর্বোচ্চ আদালতের রায়ই আইন হিসেবে গণ্য হবে: জনপ্রশাসনমন্ত্রী। ২৫ জুলাই পর্যন্ত এইচএসসির সব পরীক্ষা স্থগিত।

মিঠাপুকুরে কলেজছাত্রসহ দুইজনের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ

– দৈনিক রংপুর নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ১২ নভেম্বর ২০২৩  

Find us in facebook

Find us in facebook

রংপুরের মিঠাপুকুরে কলেজছাত্রসহ দুইজনের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। রবিবার পৃথকস্থান থেকে লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় পৃথকভাবে দুইটি ইউডি মামলা করা হয়েছে। 

নিহতরা হলেন- মো. সাফিন মিয়া (২০)। তিনি উপজেলার খোড়াগাছ ইউনিয়নের রূপসী বেকীপাড়া গ্রামের সেকান্দার আলীর ছেলে। আশিকুর রহমান (২১)। তিনি পীরগাছা উপজেলার অনন্তরাম গ্রামের জহুরুল ইসলামের ছেলে। 

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার খোড়াগাছ ইউনিয়নের রূপসী বেকীপাড়া গ্রামের সেকান্দার আলীর ছেলে সাফিন মিয়া শনিবার বিকেলে বাড়ী থেকে বের হয়ে যায়। পরে আর ফিরে আসেনি। পরদিন রবিবার সকালে বাড়ির পাশে দামুয়া এলাকায় পুকুরপাড়ে একটি আমগাছে ঝুলন্ত অবস্থায় তার মরদেহ দেখতে পান স্থানীয় এক ব্যক্তি। পরে মিঠাপুকুর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে দুপুরে মরদেহ উদ্ধার করে পোষ্ট মর্টেমের জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।

এদিকে, ঢাকা-রংপুর মহাসড়কের মিঠাপুকুর উপজেলার বলদীপুকুর বাসস্ট্যান্ডের কাছে পড়ে থাকা অবস্থায় আশিকুর রহমানের মরদেহ দেখতে পায় স্থানীয়রা। খবর পেয়ে পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠিয়েছে। মরদেহের পাশে মোটরসাইকেল ছিল। পুলিশের ধারনা, মোটরসাইকে চালিয়ে কোথাও যাচ্ছিলেন আশিকুর রহমান। 
বড় দরগাহ্ হাইওয়ে পুলিশের ইনচার্জ শেখ সোলায়মান বলেন, নিহত আশিকুর রহমান শনিবার রাতে রংপুর শহরে যাওয়ার কথা বলে বাড়ি থেকে বের হয়েছিলেন। তিনি আর ফেরেননি। মোটরসাইল দুর্ঘটনায় তিনি মারা গেছেন বলে ধারনা করা হচ্ছে।

মিঠাপুকুর থানার ওসি মোস্তাফিজার রহমান বলেন, দুটি পৃথক ঘটনায় দুইজনের মৃত্যু হয়েছে। মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে পাঠানো হয়েছে। দুটি ঘটনায় পৃথকভাবে দুটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে। ময়না তদন্ত প্রতিবেদন আসার পর কলেজছাত্রের মৃত্যুর কারণ জানা যাবে। অন্যটি সড়ক দুর্ঘটনায় মৃত্যু হয়েছে বলে মনে হচ্ছে।

Place your advertisement here
Place your advertisement here