• শুক্রবার   ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২ ||

  • আশ্বিন ১৪ ১৪২৯

  • || ০২ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

Find us in facebook
সর্বশেষ:
শেখ হাসিনার আজ জন্মদিন, জীবন যেন এক ফিনিক্স পাখির গল্প আজ থেকে করোনা টিকার বিশেষ ক্যাম্পেইন রংপুরে বাসের ধাক্কায় নিথর হলেন অটোযাত্রী ক্ষেতে কাজ করার সময় বজ্রপাত, প্রাণ গেল কৃষকের পঞ্চগড়ে নৌকাডুবি, ৩ দিন বাড়ল তদন্ত প্রতিবেদন জমার মেয়াদ

কুসুম গরম পানি পান করার স্বাস্থ্য উপকারিতা

– দৈনিক রংপুর নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ২০ সেপ্টেম্বর ২০২২  

Find us in facebook

Find us in facebook

চিকিৎসকরা বলেন, শরীরের আর্দ্রতা বজায় রাখতে সকালে ঘুম থেকে উঠে খালি পেটে এক গ্লাস গরম পানি পান করুন। সকালে এই গরম পানির সঙ্গে মধু বা লেবু মিশিয়ে পান করতে পারেন। প্রতিদিন রাতে খাওয়ার পর ঘুমাতে যাওয়ার আগে এক গ্লাস কুসুম গরম পানি পান করার পরামর্শও দেন চিকিৎসকরা।

গবেষকরা জানান, দিনে ১ থেকে ২ গ্লাস গরম পানি পান করা স্বাস্থ্যের জন্য ভালো। কুসুম গরম পানি হজম ক্ষমতা ও রক্ত চলাচলকে উন্নত করে, ওজন কমায় এবং রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়। 

জেনে নিন কুসুস গরম পানি পান করার স্বাস্থ্য উপকারিতা-

>> গরম পানি শরীরের প্রতিটি স্নায়ুকে সচল রাখে ও শরীরের বিভিন্ন ব্যথা থেকে মুক্তি দেয়। মাথা যন্ত্রণা, গিঁটে গিঁটে ব্যথা ও নারীদের মাসিক ঋতুচক্রের খিঁচুনিতে আরামদায়ক গরম পানি। 

>> কুসুম গরম পানি ঘাম ও মূত্রের মধ্য দিয়ে শরীরের ক্ষতিকর টক্সিন দূর করতে সাহায্য করে, যা শরীরকে সুস্থ রাখতে সহায়ক।

>> এই পানি কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করে। রাত্রে ঘুমানোর আগে এবং সকালে ঘুম থেকে উঠে খালি পেটে এক গ্লাস কুসুম গরম পানি পান করুন। 

>> এই পানি হজমশক্তি বৃদ্ধি করে। পাকস্থলী ও অন্ত্রের মধ্য দিয়ে যাওয়ার সময় হজম অঙ্গগুলোকে আরও ভালোভাবে হাইড্রেটেড করে। ফলে বর্জ্য বস্তু শরীর থেকে নিষ্কাশিত হয় এবং হজম ক্ষমতা বৃদ্ধি পায়। রাতে ঘুমানোর আগে এক গ্লাস কুসুম গরম পানি পান করুন।  
 
>> রক্ত সঞ্চালন ঠিক রাখতে গরম পানি। শরীরের ব্লাড ভেসেলসকে সক্রিয় রাখতে সাহায্য করে। ফলে প্রতিটি নার্ভ সচল থাকে, যা শরীরকে সুস্থ রাখতে সাহায্য করে।  

>> অনিয়মিত পিরিয়ড ও ব্যথা থেকে মুক্তি দেয় কুসুম গরম পানি। 
পিরিয়ডের সময় রক্ত জমাট বেঁধে তা বেরোতে না পারলে ব্যথা হতে থাকে। এই সময় গরম পানি পান করলে জমাট বাঁধা রক্ত ভেঙে গিয়ে ব্লাড ফ্লো সঠিকভাবে হয়, যা ব্যথা থেকে মুক্তি দেয়। 

>> অতিরিক্ত ওজন কমাতে সাহায্য করে কুসুম গরম পানি। শরীরের অতিরিক্ত মেদ ঝরায় ও খিদে কমায়। প্রতিদিন সকালে খালি পেটে লেবু বা মধু এক গ্লাস গরম পানি মিশিয়ে পান করতে পারেন। 

>>সর্দি ও নাক বন্ধ হয়ে যাওয়া থেকে মুক্তি পেতে গরম পানি পান করুন।
 
>> গরম পানি ত্বককে আর্দ্র রাখতে সাহায্য করে। আর ব্রণের সমস্যা থেকে মুক্তি দেয়। 

তথ্যসূত্র: বোল্ডস্কাই

Place your advertisement here
Place your advertisement here