• শুক্রবার ০১ মার্চ ২০২৪ ||

  • ফাল্গুন ১৭ ১৪৩০

  • || ১৯ শা'বান ১৪৪৫

Find us in facebook
সর্বশেষ:
পুলিশকে বন্ধু হিসেবে জনগণের পাশে থাকতে হবে: রাষ্ট্রপতি চিকিৎসকদের দায়িত্ব নিয়ে সেবা দিতে হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী রোজায় বড় ইফতার পার্টি না করার নির্দেশনা প্রধানমন্ত্রীর দিনাজপুরে সোহেল হত্যা মামলায় ৫ জনের যাবজ্জীবন কাউনিয়ায় ভুট্টা গাছের সঙ্গে শত্রুতা

পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের সক্ষমতা বৃদ্ধি পেয়েছে: প্রতিমন্ত্রী শামীম

– দৈনিক রংপুর নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ২০ মে ২০২৩  

Find us in facebook

Find us in facebook

পানিসম্পদ উপমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক একেএম এনামুল হক শামীম বলেছেন, চট্টগ্রামে সুপার ডাইকের মতো বড় বড় মেগা প্রকল্প বাস্তবায়নে আমার কাজ করছি। এতেই প্রমাণিত হয় পানি সম্পদ মন্ত্রনালয়ের দক্ষতা ও সক্ষমতা বৃদ্ধি পেয়েছে। আর এসবই সম্ভব হয়েছে জননেত্রী শেখ হাসিনার বদৌলতে।

শনিবার সকালে চট্টগ্রামে প্রায় ১৬৫ কোটি ব্যয়ে বাস্তবায়নধীন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্পনগরের বন্যা নিয়ন্ত্রণ সড়ক কাম বেড়িবাঁধ প্রতিরক্ষা এবং নিষ্কাশন প্রকল্প পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপে তিনি এসব কথা বলেন।

এনামুল হক শামীম বলেন, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের আওতাধীন বাংলাদেশ অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষ (বেজা) এর তত্ত্বাবধানে বাস্তবায়নাধীন ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্পনগর’ বাংলাদেশের সর্ববৃহৎ শিল্প অঞ্চল। মূলত যোগাযোগ ব্যবস্থা, সমুদ্র পথে পরিবহন, দেশি-বিদেশি বিনিয়োগের সম্ভাব্যতা ও পর্যাপ্ত জমি প্রাপ্তির উপযোগিতা বিবেচনায় প্রায় ৩০ হাজার একর এলাকাব্যাপী এ শিল্পনগরটি মিরসরাই, ফেনী ও সীতাকুণ্ডের সমুদ্র উপকূলবর্তী চরাঞ্চল ও পতিত জমিতে গড়ে তোলা হচ্ছে। 

পানিসম্পদ উপমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নির্দেশে সারা দেশের নদী ভাঙন ও জলবদ্ধতা নিরসনে পানি সম্পদ মন্ত্রণালয় কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণ ও বাস্তবায়ন করে চলছে। আর সরকারের পদক্ষেপের কারণেই সারাদেশে নদীভাঙন কমে এসেছে। কার্যকর ব্যবস্থা নেয়ার কারণেই গত ১৪ বছরে সারাদেশে নদী ভাঙনের পরিমাণ এক তৃতীয়াংশ অর্থাৎ সাড়ে ৯ হাজার হেক্টর থেকে সাড়ে ৩ হাজার হেক্টরে নেমেছে।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কৃষকের মুখে স্থায়ী হাসি দেখতে চান। সে লক্ষে হাওড়ের কৃষকের ফসল ঘরে তুলতে পানি সম্পদ মন্ত্রণালয় ও পানি উন্নয়ন বোর্ড অক্লান্ত পরিশ্রম করে গত কয়েক বছর যাবৎ তাদেরকে সার্বিক সহযোগিতা করে যাচ্ছে। এ কারণে তারা সময়মতো ফসল ঘরে তুলতে পারছে। 

এ সময় পানি উন্নয়ন বোর্ডের চট্টগ্রাম অঞ্চলের প্রধান প্রকৌশলী শিবেন্দু খাস্তগীর, তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী জুলফিকার তারেক, বেজার যুগ্ম সচিব ও প্রকল্প পরিচালক আবদুল্লাহ আল মোহাম্মদ ফারুক, উপ-সচিব ও উপ প্রকল্প পরিচালক মো. নাজমুল ইসলাম, নৌ বাহিনীর প্রতিনিধি এস. এম নাসিম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

Place your advertisement here
Place your advertisement here