• শুক্রবার   ১২ আগস্ট ২০২২ ||

  • শ্রাবণ ২৮ ১৪২৯

  • || ১৩ মুহররম ১৪৪৪

Find us in facebook
সর্বশেষ:
ছুটির দিনে গ্রামের বাড়ি গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতীয় শোক দিবসে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হবে: আইজিপি বাংলাদেশে প্রয়োজনীয় পরিমাণ গম রফতানির আগ্রহ প্রকাশ করেছে রাশিয়া বিদ্যুৎ সাশ্রয়ের লক্ষ্যে শিল্প-কারখানায় এলাকাভেদে সাপ্তাহিক ছুটি বাংলাদেশে বিনিয়োগে আগ্রহী মার্কিন কোম্পানি: খালিদ মাহমুদ চৌধুরী

হাওরের বুক চিরে নান্দনিক সড়ক   

– দৈনিক রংপুর নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ১২ আগস্ট ২০২০  

Find us in facebook

Find us in facebook

ভরা বর্ষায় কিশোরগঞ্জের হাওরগুলোর চিরায়ত রূপের বাহারে নতুন সংযুক্তি, ইটনা-মিঠামইন-অষ্টগ্রামের নবনির্মিত সড়ক। হাওরবাসীর জন্য বিশেষ উপহার হিসেবে এই রাস্তা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

হাওরের বুক চিরে গড়ে তোলা, দৃষ্টিনন্দন এই রাস্তার কল্যাণে পর্যটন আকর্ষণের নতুন সম্ভাবনা হাতছানি দিচ্ছে হাওরবাসীর স্বপ্নে।

হাওরের বিস্ময় খ্যাত এই সড়কে এখন ভরা বর্ষাতেও চলে নানা ধরনের যানবাহন। দু'পাশে উত্তাল ঢেউ আর এলোমেলো বাতাসে খানিকটা পথ মাড়ালেই মিলবে নৈসর্গিক তৃপ্তি। বিচ্ছিন্ন এসব এলাকার মানুষ এখন ছুটছেন পাকা সড়ক ধরেই স্বচ্ছলতার গন্তব্যে। প্রত্যন্ত অঞ্চলে যাতায়াতের সুবিধা পেয়ে এখন নতুন স্বপ্নে বিভোর হাওরবাসী।

একজন বলেন, 'স্বপ্নের মত হয়ে গেছে। কখনও কল্পনাও করিনি এমন রাস্তা হবে।'

স্থানীয় জনপ্রতিনিধি বলছেন, এই সড়কটির ফলে এখন পর্যটনের নতুন সম্ভাবনা এই এলাকা জুড়ে।

কিশোরগঞ্জ ৪ সংসদ সদস্য রেজওয়ান আহম্মদ তৌফিক বলেন, 'গাড়ি চলবে এমন স্বপ্ন আমার পূর্বপুরুষেরা কখনও দেখেনি। এখানে পর্যটন নিয়ে কিছু করা হলে আমার বিশ্বাস মানুষ কক্সবাজার না গিয়ে এখানে আসবে।'

পানির স্বাভাবিক প্রবাহ ধরে রাখতে সারা বছর ব্যবহার উপযোগী এই সড়কটিতে রয়েছে অন্তত ৭৬টি সেতু ও বক্সকালভার্ট।

উল্লেখ্য, দু'চোখের দৃষ্টি যতদূর যায়, পুরোটাই অথৈ পানি আর উথাল-পাথাল ঢেউয়ের অবিরত ছুটে চলা। দূরের গ্রামগুলো যেনো একেকটা ভেসে থাকা দ্বীপ। এখানে প্রয়োজন আর তাৎক্ষণিকতার বাহন শুধুই নৌকা।

Place your advertisement here
Place your advertisement here