• বুধবার   ১২ আগস্ট ২০২০ ||

  • শ্রাবণ ২৮ ১৪২৭

  • || ২২ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

Find us in facebook
সর্বশেষ:
২০১৯-২০ অর্থবছরে দেশে মাথাপিছু আয় বেড়ে এখন ২০৬৪ ডলার করোনা ভ্যাকসিন উৎপাদনে প্রস্তুত দেশের চার কোম্পানি বন্যায় এ পর্যন্ত ১১,৭৫০ টন চাল বিতরণ করেছে সরকার দেশে ৩০ কোটি মার্কিন ডলার বিনিয়োগ করবে চীনা প্রতিষ্ঠান ঐক্যফ্রন্টের ভূমিকায় বিভক্ত হয়ে পড়েছেন বিএনপি নেতাকর্মীরা
২১৬

রংপুরে অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে অভিযান, ভ্যাট আদায় ৩৩২ কোটি

– দৈনিক রংপুর নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ৫ ডিসেম্বর ২০১৯  

Find us in facebook

Find us in facebook

রংপুর বিভাগের সাত জেলার বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে বৃদ্ধি পেয়েছে ভ্যাট। যা গত বছরের তুলনায় ১৬ শতাংশ বেশি। রংপুর বিভাগীয় কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেট অফিস থেকে জানা গেছে, ২০১৯-২০ অর্থ বছরের জুলাই থেকে অক্টোবর পর্যন্ত চার মাসে ভ্যাট আদায় করা হয়েছে ৩৩২ কোটি টাকা। গত অর্থ বছরের তুলনায়  প্রায় সাড়ে ৪৬ কোটি টাকা বেশি। যা প্রবৃদ্ধির দিক দিয়ে ১৬ দশমিক ২২ শতাংশ বেশি।

গত অর্থ বছরে আদায় হয়েছিল ২৮৫ কোটি টাকা। গত বছরের অক্টোবর মাসে আদায় হয়েছিল ৭৬ কোটি টাকা। এবার অক্টোবর মাসে আদায় হয়েছে ১০১ কোটি টাকা। যা গত বছরের তুলনায় ২৪ কোটি টাকা বেশি। প্রবৃদ্ধির হার ৩২ দশমিক ২৪ শতাংশ।

অপরদিকে বিড়িতে নকল ব্যান্ডরোল ব্যবহার ও সরকারের রাজস্ব ফাঁকি দেয়াসহ বিভিন্ন অপরাধে ১৪টি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা করেছে রংপুর কাস্টমস বিভাগ।

প্রতিষ্ঠানগুলো হচ্ছে, রংপুরের হারাগাছের সিরাজ বিড়ি, যমুনা বিড়ি, আসিফ বিড়ি, হরিণ বিড়ি, মেনাজ ও পদ্ম বিড়ি, পঁচা বিড়ি, রাখি ও মরিয়ম বিড়ি, শিকারী ও সাহেব বিড়ি, আশা ও মুক্তা বিড়ি, সাগর বিড়ি, হাকিম বিড়ি তিস্তা বিড়ি, নীলফামারীর ডিমলার ফারুক বিড়ি, ও দিনাজপুরের বিরলের হরিণ বিড়ি। এছাড়াও মূল্য সংযোজন কর ফাঁকি দেয়ায় ৪৪ প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে মামলা দিয়ে কাস্টমস বিভাগ রাজস্ব আদায় করেছে প্রায় ১৫ লাখ টাকা।

আগামী ১০ ডিসেম্বর জাতীয় ভ্যাট দিবসে রংপুর বিভাগের রংপুর, কুড়িগ্রাম, লালমনিহাট, নীলফামারী, দিনাজপুর, ঠাকুরগাঁ ও পঞ্চগড় জেলার ১৮ প্রতিষ্ঠানকে সরকার কর্তৃক ঘোষিত সর্বোচ্চ মূল্য সংযোজন কর প্রদান করায় পুরস্কার প্রদান করা হবে। এরমধ্যে রংপুরের তিনটি প্রতিষ্ঠান রয়েছে বলে রংপুর বিভাগীয় কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেট অফিস থেকে জানা গেছে। অনুষ্ঠানের মাধ্যমে তাদের হাতে পুরস্কার প্রদান করবেন সমাজকল্যাণ মন্ত্রী।

রংপুর বিভাগীয় কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেট কার্যালয়ের কমিশনার শওকত আলী সাদী জানান,  রংপুর বিভাগের সাত জেলায় অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে অভিযান পরিচালনা করে তাদের বিরুদ্ধে মামলা দেয়া হচ্ছে। যাতে করে প্রকৃত বিড়ি ব্যবসায়ীরা যেন ব্যবসা করতে পারেন। প্রতিনিয়ত অভিযান পরিচালিত হচ্ছে। এতে করে সরকারের রাজস্ব আয়ও বৃদ্ধি পাচ্ছে।

Place your advertisement here
Place your advertisement here
আদালত বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর