ব্রেকিং:
কুড়িগ্রামে জেএমবি কর্তৃক ধর্মান্তরিত মুক্তিযোদ্ধা হোসেন আলী হত্যা মামলার সাক্ষ্য গ্রহন অনুষ্ঠিত দিনাজপুরে বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনায় বেকারী মালিক সমিতির নির্বাচন সম্পন্ন সৈয়দপুরে তিন দিনব্যাপী জাতীয় লাইট ইঞ্জিনিয়ারিং পণ্য ও প্রযুক্তি মেলার শুরু সৈয়দপুর বিমানবন্দরে জোরপূর্বক প্রবেশের চেষ্টাকালে তিন যুবক গ্রেফতার সালমান শাহ পারিবারিক কলহে আত্মহত্যা করেছেন : পিবিআই

সোমবার   ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০   ফাল্গুন ১২ ১৪২৬   ২৯ জমাদিউস সানি ১৪৪১

Find us in facebook
সর্বশেষ:
জাতীয় পতাকার সম্মান রক্ষার্থে সশস্ত্র বাহিনীর সদস্যদের সর্বোচ্চ ত্যাগ স্বীকার করতে প্রস্তুত থাকার আহ্বান জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ। ঠাকুরগাঁওয়ের বালিয়াডাঙ্গী উপজেলায় অজ্ঞাত রোগে আক্রান্ত হয়ে দুই দিনে একই পরিবারের দুইজনের মৃত্যু লালমনিরহাটে ট্রাক্টরের ধাক্কায় খাইরুল ইসলাম খোকা (২০) নামে এক মোটরসাইকেল আরোহী নিহত করোনা আতঙ্ক: ইরানের সঙ্গে সীমান্ত বন্ধ করলো তুরস্ক ও পাকিস্তান উন্নয়ন পরিকল্পনা একে অপরের পরিপূরক হতে হবে: প্রধানমন্ত্রী
১৯২

আন্দোলনে বদরগঞ্জ পৌরসভার স্বাভাবিক কার্যক্রমে সমস্যা

দৈনিক রংপুর

প্রকাশিত: ২৯ জুলাই ২০১৯  

Find us in facebook

Find us in facebook

রাষ্ট্রীয় কোষাগার থেকে পেনশনসহ বেতন-ভাতার দাবিতে কর্মকর্তা–কর্মচারীদের আন্দোলনের কারণে পৌরসভাগুলোতে দাপ্তরিক ও সেবা কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে। এতে চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন বদরগঞ্জ পৌর এলাকার বাসিন্দারা। ময়লা-আবর্জনা পরিষ্কার না করায় শহরের অলিগলিতে জমেছে ময়লার স্তুপ। বন্ধ রয়েছে টিকাদান কর্মসূচি। কর সংগ্রহ, নাগরিক সনদ প্রদান, ট্রেড লাইসেন্স, জন্ম-মৃত্যু নিবন্ধনসহ দৈনন্দিন পৌর সেবা পাচ্ছেন না সাধারণ মানুষ।

১৪ জুলাই থেকে কাজ বন্ধ রেখে আন্দোলন কর্মসূচি পালন করছে দেশের ৩২৮টি পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। 

রংপুরের বদরগঞ্জ পৌরসভার বাসিন্দা অসুস্থ টুলু শাহ্ জরুরি চিকিৎসার জন্য দেশের বাইরে যাবেন। এ কারণে দরকার জন্মনিবন্ধন সনদ। আট দিন ধরে তিনি পৌরসভায় যাচ্ছেন আর ফিরে আসছেন। কিন্তু জন্মনিবন্ধন পাননি। গতকাল মঙ্গলবার তিনি পৌর মেয়র উত্তম কুমার সাহার সঙ্গে দেখা করে সমস্যার কথা জানান। কিন্তু মেয়রও সমাধান দিতে পারেননি।

পৌরসভার বালুয়াভাটা গ্রামের আনিছুল হক পাসপোর্ট করার আবেদনপত্রে মেয়রের প্রয়োজনীয় সই ও সিলমোহরের জন্য পৌরসভায় ঘুরছেন ৯ দিন ধরে। গতকালও এসেছিলেন কিন্তু পৌরসভায় তালা ঝুলতে দেখে ফিরে গেছেন।

পৌরসভার মেয়র উত্তম কুমার সাহা বলেন, পৌরসভায় ৫০ হাজার মানুষ বাস করেন। প্রতিদিন পৌরসভা কার্যালয়ে সরাসরি এসে গড়ে দুই শতাধিক মানুষ সেবা নেন। পৌর কর্মকর্তা-কর্মচারীরা আন্দোলনে থাকায় ১০ দিন ধরে মানুষকে সেবা দেওয়া যাচ্ছে না।

– দৈনিক রংপুর নিউজ ডেস্ক –
Place your advertisement here
Place your advertisement here
এই বিভাগের আরো খবর